প্রকাশিত : ৭ জুলাই, ২০২০ ১৭:১১

ফেসবুকের তথ্য চুরির অভিযোগ ২৫ অ্যাপের বিরুদ্ধে

অনলাইন ডেস্ক
ফেসবুকের তথ্য চুরির অভিযোগ ২৫ অ্যাপের বিরুদ্ধে

প্লে স্টোর থেকে বেশ কিছু অ্যাপ সরিয়ে ফেলল গুগল। গুগল প্লে স্টোর থেকে মুছে ফেলা হয়েছে মোট ২৫টি অ্যাপ। যা প্রায় ২৩ দশমিক ৪ লাখ বার ডাউনলোড করার কারণে ফেসবুকে থাকা নথিপত্র চুরি করছিল বলে অভিযোগ।

ফ্রান্সের সাইবার নিরাপত্তা সংস্থা এভিনা এমন বেশ কয়েকটি অ্যাপ খুঁজে পেয়েছে, যেগুলো গত জুন মাসে গুগল প্লে স্টোর থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়।

জানা গেছে, নিষিদ্ধ অ্যাপগুলোর আসল পরিচয় গোপন করতে গেমস, ফ্ল্যাশলাইট, ওয়ালপেপার, এডিটিং সফটওয়্যার, কিউআর স্ক্যানার, স্টেপ কাউন্টার, ফাইল ম্যানেজার এবং এমনই অনেক ভুয়ো পরিচয়ের মোড়ক ব্যবহার করা হয়েছিল। অভিযোগ, নির্দিষ্ট কাজের ফাঁকে এই অ্যাপগুলো ক্ষতিকর পদক্ষেপ করে চলেছিল। 

এভিনা জানিয়েছে, যদি কোনও ভাইরাস আক্রান্ত ফোনে এই অ্যাপগুলোর কোনও একটি লঞ্চ করা হয়, তাহলে হ্যাকিং রোধক কোড সঙ্গে সঙ্গে তার নাম জানতে চাইবে। ফেসবুকের ক্ষেত্রে ম্যালওয়্যারটি এমন এক ব্রাউজার লঞ্চ করবে, যা আসল অ্যাপের ওপরে এক ভুয়া লগ ইন পেজ লোড করবে। ইউজার নিজস্ব তথ্যাবলী তাতে পূর্ণ করলেই তার অ্যাকাউন্টে লগ ইন করবে ম্যালওয়্যার এবং সমস্ত তথ্যাবলী কোনও রিমোট সার্ভারে চালান করে দেবে।

কারও ফেসবুক লগ ইনের তথ্য হাতাতে পারলে যে কোনও হ্যাকার সেই অ্যাকাউন্টে থাকা যাবতীয় ব্যক্তিগত তথ্যের হদিশ পেয়ে যাবে। শুধু তাই নয়, অন্যান্য ওয়েবসাইটে ওই একই লগ ইন তথ্যাবলী ব্যবহার করে ইউজারের ব্যক্তিগত তথ্যের নাগাল পেতে পারে হ্যাকাররা। 

উল্লেখ্য, গত জুন মাসেও গুগল প্লে স্টোর থেকে ৩০টি অ্যাপ সরিয়ে ফেলা হয়েছে। নিষিদ্ধ এই অ্যাপগুলোর মধ্যে রয়েছে টিভি, গেম, রিমোট চালিত বেশ কিছু অ্যাপ। হ্যাকিং এড়াতে মোবাইল ফোনে কোনও অ্যাপ ডাউনলোড করার আগে তার নীতি ও অন্যান্য বিষয় সম্পর্কে সবিস্তারে জেনে নেওয়া জরুরি, পরামর্শ দিয়েছেন সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞরা।

সূত্র- হিন্দুস্তান টাইমস। 

উপরে