প্রকাশিত : ২ অক্টোবর, ২০২১ ২০:৩৭

রাতের আঁধারে নিম্নমান সামগ্রী দিয়ে কাজ করছিলেন মেম্বার, হাজির ইউএনও!

শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি
রাতের আঁধারে নিম্নমান সামগ্রী দিয়ে কাজ করছিলেন মেম্বার, হাজির ইউএনও!

বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার আড়িয়া ইউনিয়নের মানিকদ্বিপা বিন্নাচাপর গ্রামে রাতের আধাঁরে নিম্নমান সামগ্রী দিয়ে এলজিএসপি বরাদ্দে রাস্তায় সিসি ঢালাইয়ের কাজ করছিলেন স্থানীয় ইউপি সদস্য আব্দুর রহমান। খবর পেয়ে সেখানে হাজির হন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আসিফ আহমেদ।

এসময় কাজের অনিয়মের সত্যতা পেয়ে কাজ বন্ধ করে দিয়ে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নকশা অনুযায়ী পুনরায় কাজ করার নির্দেশ দেন তিনি। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার দিবাগত রাত ৯টার দিকে।

জানাগেছে, উপজেলার মানিকদ্বিপা বিন্নাচাপর গ্রামে লোকাল গভর্ন্যান্স প্রজেক্ট (এলজিএসপি) এর প্রায় ৪ লক্ষ টাকা বরাদ্দে রাস্তায় সিসি ঢালাই কাজ শুরু করেন ২ নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুর রহমান। অভিযোগ উঠে নিম্নমান সামগ্রী ব্যবহার করে রাতের আধারে নির্মাণ কাজ করা হচ্ছে। এমন অভিযোগে শুক্রবার দিবাগত রাত ৯টার দিকে সেখানে সরজমিনে তদন্তে যান উপজেলা নির্বাহী অফিসার আসিফ আহমেদ। এ সময় তার সাথে ছিলেন উপ-সহকারী প্রকৌশলী নুরুল ইসলাম। তদন্তে অভিযোগের সত্যতা পেয়ে কাজ বন্ধ করে দিয়ে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নকশা অনুযায়ী পুনরায় কাজ করার নির্দেশ দেন ইউএনও আফিস আহমেদ। ইউএনও’র তড়িৎ পদক্ষেপ নেয়ায় স্থানীয় ভাবে প্রশংসিত হন তিনি।

উপ-সহকারী প্রকৌশলী নুরুল ইসলাম জানান, তাকে না জানিয়েই ইউপি সদস্য কাজ শুরু করেছেন। অথচ কাজ শুরুর আগে তাকে জানানোর কথা ছিল। অনিয়মের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার আসিফ আহমেদ জানান, প্রাক্কলন অনুযায়ী কাজ না করায় এবং নিম্নমানের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার করায় কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। নতুন করে সঠিকভাবে প্রাক্কলন অনুযায়ী কাজ করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

উপরে