logo
আপডেট : ১০ নভেম্বর, ২০২১ ১০:৫৪
৩০ বছর ধরে টয়লেটের পানি পান!
অনলাইন ডেস্ক

৩০ বছর ধরে টয়লেটের পানি পান!

একদিন দুদিন নয়, টানা ৩০ বছর ধরে টয়লেটের পানি পান করা! অবিশ্বাস্য মনে হলেও ঘটনাটি ঘটেছে জাপানের বিখ্যাত ওসাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হাসপাতালে। গত ২০ অক্টোবর বিষয়টি নজরে আসে কর্তৃপক্ষের। এরপর ঘটনা জানাজানি হলে স্থানীয় এক গণমাধ্যম ইয়োমিউরি শিম্বুনের প্রতিবেদনে উঠে আসে বিষয়টি।

জাপানের সুইতায় ওই মেডিকেল কলেজ হাসপাতালটি অবস্থিত। জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে বাথরুমের টয়লেটের সঙ্গে ভুলবশত পানির লাইনের সংযোগ ঘটে যায়। হাসপাতালের স্টাফ, রোগীরা সেই পানি খেয়েছেন, হাত ধুয়েছেন, এমনকি তাদের অন্যান্য প্রয়োজনীয় কাজে ব্যবহার করেছেন গত ৩০ বছর ধরে। সম্প্রতি হাসপাতালটির নতুন একটি ভবন পরিদর্শনে গিয়ে বিষয়টি ধরা পড়ে।

১৯৯৩ সালে হাসপাতালটি চালু করা হয়। এটির মেডিকেল বিভাগের প্রায় ১২০টি পানির ট্যাপে ভুল পাইপের সংযোগ ছিল। ধারণা করা হচ্ছে তখনই হয়তো ভুল হয়েছে। ফলে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নতুন করে ওয়াটার প্ল্যান্ট তৈরি না হওয়ার পর্যন্ত ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ সেটি আমলে নেয়নি। তবে তাৎক্ষণিকভাবে পাইপ বদলে ফেলা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ঘটনাটি তদন্ত করা হচ্ছে এবং পরীক্ষা করা হচ্ছে পানির অবস্থা কী। যদিও কারো স্বাস্থ্যের কোনো ক্ষতি হয়েছে কিনা সেটি এখনও জানা যায়নি। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও বিষয়টি খতিয়ে দেখছে প্রতিবেদন প্রকাশের পর।

প্রতিবেদনটিতে আরও বলা হয়েছে, হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ পানির রং ও স্বাদ এক সপ্তাহ পর পর পরীক্ষা করে দেখেছে যে, ২০১৪ সালের পর কোনো সমস্যা দেখা দেয়নি।

সংবাদ সম্মেলন করে ওসাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক এবং হাসপাতালের ভাইস প্রেসিডেন্ট কাজুহিকো নাকাতানি ক্ষমা প্রার্থনা করে বলেছেন, আমি অত্যন্ত দুঃখিত যে উন্নত চিকিৎসা সেবা প্রদানকারী বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালটি উদ্বেগের সৃষ্টি করেছে।

তিনি আরও বলেন, প্রতিনিয়ত এখন পাইপগুলো পরীক্ষা করা হচ্ছে।

সূত্র: ডেইলি মেইল