logo
আপডেট : ৭ জানুয়ারী, ২০২২ ১৫:৪৪
এবার পুতুলের মাথা কাটছে তালেবান
অনলাইন ডেস্ক

এবার পুতুলের মাথা কাটছে তালেবান

যে কোনো শপিং মল বা বড় কোনো দোকানে ঢোকার সময় দর্শকদের প্রদর্শনের জন্য পোশাক পরিহিতি পুতুলের (ম্যানিকিন) মাথা কেটে ফেলার নির্দেশ দিয়েছে তালেবান। আফগানিস্তানের পশ্চিমাঞ্চলের দোকান মালিকদের এ নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। খবর এএফপির।

তালেবান সরকারেরে এক কর্মকর্তা বলছেন, মানুষের মতো তৈরি এসব পুতুল ইসলামি আইনের পরিপন্থি।

মাথাবিহীন প্লাস্টিকের নারী ম্যানিকিনের গলা কাটার একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমেও উঠে এসেছে এই খবর।

হেরাত শহরে মিনিস্ট্রি ফর দ্য প্রমোশন অব ভারচু অ্যান্ড প্রিভেনশন অব ভাইসের প্রধান আজিজ রহমান বলেন, ম্যানিকিনের মাথা কেটে ফেলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কারণ, এটি শরিয়া আইনের পরিপন্থি।

এই নির্দেশনার পর কয়েকজন পোশাক ব্যবসায়ী এরই মধ্যে ম্যানিকিনের মাথা ও মুখ প্লাস্টিকের ব্যাগ ও স্কার্ফ দিয়ে ঢেকে রেখেছেন। তবে এখন পর্যন্ত তালেবান এ নিয়ে সরকারি কোনো আইন জারি করেনি।

এদিকে, আফগানিস্তানে মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু করেছে তালেবান সরকার। স্থানীয় সময় রোববার (২ জানুয়ারি) দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা জানায়, আফগান গোয়েন্দা এজেন্টদের একটি দল কাবুলের একটি খালে প্রায় তিন হাজার লিটার মদ ঢেলে দেয়।

পশ্চিমা-সমর্থিত সরকারের সময়েও আফগানিস্তানে মদ নিষিদ্ধ ছিল। আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর থেকেই তালেবান নিয়মিতভাবে মাদক ও মাদক সেবনকারীদের বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছে। এছাড়া তালেবান সরকারের পূণ্য সম্প্রসারণ ও পাপ প্রতিরোধ মন্ত্রণালয় নারী অধিকারবিষয়ক বেশ কয়েকটি গাইডলাইনও প্রকাশ করেছে।

২০২১ সালের ১৫ আগস্ট আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুল দখলে নেয় তালেবান। এরপর ৩১ আগস্ট টানা ২০ বছরের যুদ্ধের অবসান ঘটিয়ে শেষ পর্যন্ত দেশটি থেকে সব সেনা প্রত্যাহার করে নেয় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও তাদের মিত্ররা।

তালেবান আফগানিস্তানের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর থেকেই একের পর এক সমস্যা মাথাচাড়া দিয়ে উঠছে দেশটিতে। নিরাপত্তার অভাব, সন্ত্রাসী হামলার আশঙ্কা, অনিশ্চিত ভবিষ্যতের দিকে এগোচ্ছে দেশটি। মুখ থুবড়ে পড়েছে অর্থনৈতিক ব্যবস্থা।

এদিকে, তালেবান সরকার গঠনের পর একের পর এক বিধিনিষেধ জারি করছে। যার ফলে দেশটির সংকট আরও তীব্র হচ্ছে।

এরই মধ্যে তালেবান সরকার নারীদের ব্যাপারে নানা বিধিনিষেধ জারি করেছে। এর আগে তালেবান নারীবিষয়ক মন্ত্রণালয়ও বন্ধ করে দেয়। শান্তিবিষয়ক ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয় বন্ধ করে দেওয়া হয়। ভেঙে দেওয়া হয়েছে দেশটির নির্বাচন কমিশনও। এবার মাদকের বিরুদ্ধে কঠোর অভিযানে নেমেছে তালেবান সরকার।

এর আগের শাসনকাল অর্থাৎ নব্বইয়ের দশকে তাদের প্রথম শাসনামলে দুটি প্রাচীন বুদ্ধমূর্তি ধ্বংস করলে বিশ্বব্যাপী ক্ষোভ তৈরি হয় তালেবান সরকারের বিরুদ্ধে।