logo
আপডেট : ১০ জানুয়ারী, ২০২৩ ১৩:০১
পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক শেষে ঢাকা ত্যাগ চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর
অনলাইন ডেস্ক

পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক শেষে ঢাকা ত্যাগ চীনা পররাষ্ট্রমন্ত্রীর

এক ঘণ্টার যাত্রাবিরতিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেনের সঙ্গে বৈঠক শেষে ঢাকা ত্যাগ করেছেন চীনের নতুন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ছিন গ্যাং।

সোমবার (৯ জানুয়ারি) রাত ২টা ৫০ মিনিটে আফ্রিকার উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেন তিনি।

এর আগে সোমবার দিবাগত রাত ১টা ৫৮ মিনিটে তাকে বহনকারী উড়োজাহাজ ঢাকার হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে। এ সময় ছিন গ্যাংকে বিমানবন্দরে স্বাগত জানান বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। এরপর দুই পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মধ্যে বিমানবন্দরের ভিআইপি লাউঞ্জে একটি বৈঠক হয়।

বৈঠক শেষে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশকে করোনাভাইরাসের টিকা দেওয়ায় চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানানো হয়েছে। এ সময় চীনের সঙ্গে বাংলাদেশের বিপুল পরিমাণ বাণিজ্য ঘাটতির বিষয়ে কিন গ্যাংকে অবহিত করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

চীনের বাজারে বাংলাদেশি পণ্যের শুল্কমুক্ত প্রবেশাধিকার দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু দীর্ঘদিন পার হলেও বাংলাদেশি ব্যবসায়ীরা সেই সুবিধা পাচ্ছেন না। এ বিষয়ে ঘোষণা দিতে চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে অনুরোধ করেন আব্দুল মোমেন। পদ্মা সেতুসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ডে চীনের সহযোগিতার বিষয় আলোচনায় স্থান পায়।

বৈঠকে বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে চীন সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছেন কিন গ্যাং। জবাবে আব্দুল মোমেন তাকে আরও বেশি সময়ের জন্য বাংলাদেশ সফরের প্রস্তাব দিয়েছেন।

চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে বহনকারী উড়োজাহাজটি বেইজিং থেকে আফ্রিকা যাওয়ার পথে জ্বালানি সংগ্রহের জন্য হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

আফ্রিকার পাঁচ দেশ ইথিওপিয়া, গ্যাবন, অ্যাঙ্গোলা, বেনিন ও মিসর সফরে যাচ্ছেন কিন গ্যাং। জানুয়ারির ৯ থেকে ১৬ তারিখ পর্যন্ত তিনি এই পাঁচ দেশ সফর করবেন।